জশোড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাঠ্যদান চলছে ১ জন শিক্ষক দ্বারা

আবদুল মোতালেবঃ ১৩০ জন শিক্ষার্থীর শিক্ষা দিচ্ছে একজন শিক্ষক। অনেক কাছে এটা শুনতে কল্পনার হলে ও আসলে এটা বাস্তব । আর তা চাটখিল উপজেলার ৫ নং মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে জশোড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চিত্র । এই বিদ্যালয়ে প্রায় ১৩০ জন শিক্ষার্থী রয়েছে। আর তাদের শিক্ষাদানের জন্য রয়েছে একজন মাত্র শিক্ষক। বর্তমানে যিনি শিক্ষক হিসাবে আছেন তার নাম হলো জনাব ওমর ফারুক। তিনি বলেন বিদ্যালয়টি ২০১৩ সালে ৩জন শিক্ষক দিয়ে চালু হয়।চালুর পর থেকে শিক্ষক আসলে তারা বিভিন্ন তদবিরে চলে যায়।২০১৫ সালে একজন শিক্ষক চলে যান।আর থাকে ২জন।২০১৭ সালের মার্চে আরেক জন শিক্ষক চলে যান এখন মাত্র ১জন শিক্ষক দিয়ে বিদ্যালয়টি চলছে।গত এক মাসে ২বার শিক্ষক ডেপুটেশন দেওয়া হলেও তারা বিভিন্ন রাজনৈতিক তদবির করে।স্ব স্ব স্কুলে থেকে যায়।এতে করে বর্তমানে বিদ্যালয়ের সমাপনী পরিক্ষার্থীদের পাঠদান হচ্ছে না।বিদ্যালয়ের ১৩০ জন ছাত্রছাত্রী শিক্ষার আলো থেকে বঞ্চিত। আমার একা পক্ষে ১৩০ জন শিক্ষার্থীকে পাঠ দান সম্ভব না। তাই অতি শীঘ্রই এই বিদ্যালয় আরো ২ জন শিক্ষক প্রয়োজন ।এই ব্যাপারের মাননীয় উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা শিক্ষা অফিসারে দৃষ্টি আর্কষণ করছি।