কোভিট-১৯ সন্দেহে প্রবাসীকে কোয়ারেন্টাইনে কাতার প্রবাসী।

কোভিট-১৯ সন্দেহে নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার জাহাজমারা ইউনিয়নে এক কাতার প্রবাসীকে কোয়ারেন্টাইন রাখা হয়েছে।

জানা গেছে, গত ৯ মার্চ সোমবার বিকেলে কাতার থেকে বাংলাদেশে আসেন ওই প্রবাসী। তিনি কাতারে থাকাকালীন দীর্ঘ ১৫ দিন ধরে জ্বর ও কাশিতে ভুগছেন। মঙ্গলবার সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার উপসর্গগুলো দেখে করোনা সন্দেহে তাকে নিজ বাড়িতে কোয়ারেন্টাইন এ থাকার অনুরোধ করেন।

হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. মোহাম্মদ ইউছুফ জানান, সকালে ওই প্রবাসীর ভগ্নিপতি তাকে হাসপাতালে নিয়ে আসে। তার জ্বর, গলা ব্যাথা, কাশি ও মাথা ব্যথা এসব উপসর্গ দেখে সন্দেহ হওয়ায় কাতার প্রবাসীকে নিজ বাড়িতে কোয়ারেন্টাইন রাখা হয়েছে। তার ভগ্নিপতিকেও কোয়ারেন্টাইনে থাকার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

নোয়াখালী জেলা প্রশাসক তন্ময় দাস বলেন, পরীক্ষা করা ছাড়া এখনো কিছু বলা যাচ্ছে না। যেহেতু তিনি কাতারে থাকাকালীন দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ তাই বিষয়টি নিয়ে আইইডিসিআর যোগাযোগ করা হয়েছে, বিষয়টি নিয়ে সন্দেহ থাকায় আপাতত তাকে তার বাড়িতে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। ১৪ দিন পর তাকে ঢাকায় প্রেরণ করা হবে।